ঢাকা ০৮:৩২ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ২৮ মে ২০২৪, ১৪ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

চাঁদপুর সরকারি কলেজে যথাযথ মর্যাদায় শহিদ বুদ্ধিজীবী দিবস পালন

ক্যাম্পাস প্রতিবেদক : ঐতিহ্যবাহী বিদ্যাপীঠ চাঁদপুর সরকারি কলেজে মঙ্গলবার (১৪ ডিসেম্বর) সকাল দশটায় কলেজ কনফারেন্স কক্ষে শহিদ বুদ্ধিজীবী দিবস উপলক্ষ্যে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়।

Model Hospital

ইতিহাস বিভাগের বিভাগীয় প্রধান ও সহযোগী অধ্যাপক শেখ মোঃ খলিলুর রহমানের সভাপতিত্বে এবং বাংলা বিভাগের সহকারী অধ্যাপক মোঃ সাইদুজ্জামানের সঞ্চালনায় আলোচনা সভায় বক্তব্য রাখেন রাষ্ট্রবিজ্ঞান বিভাগের প্রভাষক মোঃ শামসুল হক, রাষ্ট্রবিজ্ঞান বিভাগের সহকারী অধ্যাপক মোঃ মেহেদী হাসান, ইংরেজী বিভাগের বিভাগীয় প্রধান ও সহযোগী অধ্যাপক মোঃ আলী আজগর ফকির, অর্থনীতি বিভাগের অধ্যাপক ড. জসিম উদ্দিন আহমেদ। সকল বক্তাই দিবসটির তাৎপর্য তুলে ধরেন এবং গভীর শ্রদ্ধার সাথে স্বরণ করেন জাতির এই সূর্য সন্তানদের। ১৯৭১ সালে বাঙালি জাতি যখন বিজয়ের দ্বারপ্রান্তে, ঠিক তখনই অত্যন্ত পরিকল্পিতভাবে জাতিকে মেধাশূন্য করার উদ্দেশ্যে এই জঘন্য হত্যাকান্ড সংঘটিত করা হয় বলে তারা অভিমত প্রকাশ করেন।

কলেজ অধ্যক্ষ প্রফেসর অসিত বরণ দাশ প্রধান অতিথি, উপাধ্যক্ষ প্রফসর মোঃ আবুল খায়ের সরকার এবং শিক্ষক পরিষদ সম্পাদক মোহাম্মদ কামরুল হাছান বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন। আলোচনা সভার শুরুতে জাতীর সূর্য সন্তানদের প্রতি গভীর শ্রদ্ধা জানিয়ে এক মিনিট নিরবতা পালন করা হয়।

পবিত্র কোরআন থেকে তেলাওয়াত করেন ইসলামিক স্টাডিজ বিভাগের প্রভাষক মোঃ আল-আমিন এবং পবিত্র গীতা থেকে পাঠ করেন ইতিহাস বিভাগের প্রভাষক সুমন মজুমদার।

শহিদ বুদ্ধিজীবীগণের জীবনী ও কর্মজীবন এবং মহান মুক্তিযুদ্ধে তাঁদের অবদান নিয়ে বক্ততা আলোচনা করেন। তারা আরও বলেন, যে উদ্দেশ্যে জাতির মেধাবী সন্তানদের হত্যা করেছে, সে উদ্দেশ্য কখনও সফল হয়নি এবং হবেও না। বাংলাদেশ অনেক এগিয়েছে, আরও অনেক এগিয়ে যাবে এবং বিশ্ব দরবারে বাংলাদেশ আজ মাথা উচু করে দাঁড়িয়েছে।

এর আগে সকাল নয়টায় কলেজ আঙিনায় স্থাপিত স্মৃতিসৌধ এবং জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ম্যুরালে শ্রদ্ধার্ঘ নিবেদন করেন কলেজ শিক্ষক-কর্মকর্তাবৃন্দ।

বিভিন্ন বিভাগের বিভাগীয় প্রধানগণ এবং শিক্ষকবৃন্দের এ সময় উপস্থিতি ছিলেন।

ট্যাগস :
জনপ্রিয় সংবাদ

চাঁদপুরে রিমালে ক্ষতিগ্রস্ত এলাকা পরিদর্শনে নবনির্বাচিত উপজেলা চেয়ারম্যান সুমন

চাঁদপুর সরকারি কলেজে যথাযথ মর্যাদায় শহিদ বুদ্ধিজীবী দিবস পালন

আপডেট সময় : ০৩:০০:৩৭ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ১৪ ডিসেম্বর ২০২১

ক্যাম্পাস প্রতিবেদক : ঐতিহ্যবাহী বিদ্যাপীঠ চাঁদপুর সরকারি কলেজে মঙ্গলবার (১৪ ডিসেম্বর) সকাল দশটায় কলেজ কনফারেন্স কক্ষে শহিদ বুদ্ধিজীবী দিবস উপলক্ষ্যে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়।

Model Hospital

ইতিহাস বিভাগের বিভাগীয় প্রধান ও সহযোগী অধ্যাপক শেখ মোঃ খলিলুর রহমানের সভাপতিত্বে এবং বাংলা বিভাগের সহকারী অধ্যাপক মোঃ সাইদুজ্জামানের সঞ্চালনায় আলোচনা সভায় বক্তব্য রাখেন রাষ্ট্রবিজ্ঞান বিভাগের প্রভাষক মোঃ শামসুল হক, রাষ্ট্রবিজ্ঞান বিভাগের সহকারী অধ্যাপক মোঃ মেহেদী হাসান, ইংরেজী বিভাগের বিভাগীয় প্রধান ও সহযোগী অধ্যাপক মোঃ আলী আজগর ফকির, অর্থনীতি বিভাগের অধ্যাপক ড. জসিম উদ্দিন আহমেদ। সকল বক্তাই দিবসটির তাৎপর্য তুলে ধরেন এবং গভীর শ্রদ্ধার সাথে স্বরণ করেন জাতির এই সূর্য সন্তানদের। ১৯৭১ সালে বাঙালি জাতি যখন বিজয়ের দ্বারপ্রান্তে, ঠিক তখনই অত্যন্ত পরিকল্পিতভাবে জাতিকে মেধাশূন্য করার উদ্দেশ্যে এই জঘন্য হত্যাকান্ড সংঘটিত করা হয় বলে তারা অভিমত প্রকাশ করেন।

কলেজ অধ্যক্ষ প্রফেসর অসিত বরণ দাশ প্রধান অতিথি, উপাধ্যক্ষ প্রফসর মোঃ আবুল খায়ের সরকার এবং শিক্ষক পরিষদ সম্পাদক মোহাম্মদ কামরুল হাছান বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন। আলোচনা সভার শুরুতে জাতীর সূর্য সন্তানদের প্রতি গভীর শ্রদ্ধা জানিয়ে এক মিনিট নিরবতা পালন করা হয়।

পবিত্র কোরআন থেকে তেলাওয়াত করেন ইসলামিক স্টাডিজ বিভাগের প্রভাষক মোঃ আল-আমিন এবং পবিত্র গীতা থেকে পাঠ করেন ইতিহাস বিভাগের প্রভাষক সুমন মজুমদার।

শহিদ বুদ্ধিজীবীগণের জীবনী ও কর্মজীবন এবং মহান মুক্তিযুদ্ধে তাঁদের অবদান নিয়ে বক্ততা আলোচনা করেন। তারা আরও বলেন, যে উদ্দেশ্যে জাতির মেধাবী সন্তানদের হত্যা করেছে, সে উদ্দেশ্য কখনও সফল হয়নি এবং হবেও না। বাংলাদেশ অনেক এগিয়েছে, আরও অনেক এগিয়ে যাবে এবং বিশ্ব দরবারে বাংলাদেশ আজ মাথা উচু করে দাঁড়িয়েছে।

এর আগে সকাল নয়টায় কলেজ আঙিনায় স্থাপিত স্মৃতিসৌধ এবং জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ম্যুরালে শ্রদ্ধার্ঘ নিবেদন করেন কলেজ শিক্ষক-কর্মকর্তাবৃন্দ।

বিভিন্ন বিভাগের বিভাগীয় প্রধানগণ এবং শিক্ষকবৃন্দের এ সময় উপস্থিতি ছিলেন।