ঢাকা ০৭:৪৯ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ১৯ জুন ২০২৪, ৫ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

কচুয়ায় আলোর মশালের হুইল চেয়ার পেলেন আয়েশা বেগম

কচুয়া প্রতিনিধি : মধ্যবয়সী আয়েশা বেগম (৪০)। স্বামী মানসিক ভারসাম্যহীন। মানুষের বাড়ি বাড়ি কাজ করে স্বামী ও সন্তানদের নিয়ে দুঃখের সংসার চলছে। এক দুঘর্টনায় এক হাত ও পা ভেঙ্গে যায় আয়েশার। পরে চিকিৎসা করেও হাত আর পা আর ভালো হয়নি। এই মানবেতর জীবনযাপন দেখে স্থানীয় এক ব্যক্তির অনুরোধে আলোর মশাল সামাজিক যুব সংগঠন উদ্যোগ নিয়ে প্রবাসী কল্যান পরিষদ কচুয়া উপজেলা শাখার সভাপতি কাজী মোখলেছুর রহমানের অর্থায়নে আয়েশাকে একটি হুইল চেয়ার উপহার দেন। এতেই মহাখুশি হয়ে মধ্যবয়সী আয়েশা এই সংগঠনের প্রতি কৃতজ্ঞতা জ্ঞাপন করেন।

Model Hospital

শারীরিক প্রতিবন্ধী আয়েশা বেগম কচুয়া উপজেলার সদর দক্ষিণ ইউনিয়নের ইউনিয়নের হোসেনপুর গ্রামের খোকন মিয়ার স্ত্রী।

এসময় উপস্থিত ছিলেন, আলোর মশাল সামাজিক যুব সংগঠনের সভাপতি ওমর ফারুক সাইম, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক শাহাদাত হোসেন সুমন, উপদেষ্টা ওমর খৈয়াম বাগদাদী রুমি, বরুচর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক সোহেল রানা, ওয়ার্ড কৃষি সুপারভাইজার মিজানুর রহমান।

আয়েশা বলেন, এতদিন আমি খুব কষ্ট পেয়েছি। মানুষের বাড়ি বাড়ি গিয়ে কাজ করতাম। অনেক সময় হাত পা ভাঙ্গা থাকায় কাজও করতে পারিনি। হুইলচেয়ার পাবার পর কিছুটি কষ্ট দূর হলো। খাবার জোগাড় করা নিয়ে সবসময় চিন্তিত থাকতাম। তবে চাওয়া বেশি কিছু ছিলে না, চিকিৎসার জন্য আর্থিক সহযোগীতা ও একটি হুইল চেয়ার।

আলোর মশাল সামাজিক যুব সংগঠনের সভাপতি ওমর ফারুক সাইম জানান, শারীরিক প্রতিবন্ধী অসহায় আয়েশাসহ ১৫জন শিশু ও অসহায়কে হুইলচেয়ার দিয়েছি। অসহায়কে সহযোগিতা করতে পেয়ে আমরা মনে শান্তি পাই ও আনন্দ ভোগ করি। নতুন প্রজন্মকে বার্ধক্য ও প্রতিবন্ধী বিষয়ে সচেতনতা বৃদ্ধি সমাজের অসহায় প্রবীণ ও প্রতিবন্ধী মানুষকে বিভিন্ন মানবিক সহায়তা প্রদান এবং সহায়ক উপকরণ বিতরণ কাজের অংশ হিসেবে সংগঠনের পক্ষ হতে তাকে হুইলচেয়ার প্রদান করা হয়। এ সংগঠন যত দিন আছে অসহায় প্রতিবন্ধীদের সহযোগিতা করে যাব। আয়েশা বেগমের হুইল চেয়ারটির সম্পূর্ণ অর্থ দিয়ে সহযোগীতা করেছেন প্রবাসী কল্যান পরিষদ কচুয়া উপজেলা শাখার সভাপতি কাজী মোখলেছুর রহমান। তার নিকট কৃতজ্ঞতা জ্ঞাপন করছি।

ট্যাগস :
জনপ্রিয় সংবাদ

উদয়ন প্রিমিয়ার লীগ ফুটবল টুর্নামেন্ট ফাইনাল খেলা ও পুরস্কার বিতরণ সম্পূর্ণ

কচুয়ায় আলোর মশালের হুইল চেয়ার পেলেন আয়েশা বেগম

আপডেট সময় : ০২:৪২:৪৮ অপরাহ্ন, শনিবার, ১৭ সেপ্টেম্বর ২০২২

কচুয়া প্রতিনিধি : মধ্যবয়সী আয়েশা বেগম (৪০)। স্বামী মানসিক ভারসাম্যহীন। মানুষের বাড়ি বাড়ি কাজ করে স্বামী ও সন্তানদের নিয়ে দুঃখের সংসার চলছে। এক দুঘর্টনায় এক হাত ও পা ভেঙ্গে যায় আয়েশার। পরে চিকিৎসা করেও হাত আর পা আর ভালো হয়নি। এই মানবেতর জীবনযাপন দেখে স্থানীয় এক ব্যক্তির অনুরোধে আলোর মশাল সামাজিক যুব সংগঠন উদ্যোগ নিয়ে প্রবাসী কল্যান পরিষদ কচুয়া উপজেলা শাখার সভাপতি কাজী মোখলেছুর রহমানের অর্থায়নে আয়েশাকে একটি হুইল চেয়ার উপহার দেন। এতেই মহাখুশি হয়ে মধ্যবয়সী আয়েশা এই সংগঠনের প্রতি কৃতজ্ঞতা জ্ঞাপন করেন।

Model Hospital

শারীরিক প্রতিবন্ধী আয়েশা বেগম কচুয়া উপজেলার সদর দক্ষিণ ইউনিয়নের ইউনিয়নের হোসেনপুর গ্রামের খোকন মিয়ার স্ত্রী।

এসময় উপস্থিত ছিলেন, আলোর মশাল সামাজিক যুব সংগঠনের সভাপতি ওমর ফারুক সাইম, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক শাহাদাত হোসেন সুমন, উপদেষ্টা ওমর খৈয়াম বাগদাদী রুমি, বরুচর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক সোহেল রানা, ওয়ার্ড কৃষি সুপারভাইজার মিজানুর রহমান।

আয়েশা বলেন, এতদিন আমি খুব কষ্ট পেয়েছি। মানুষের বাড়ি বাড়ি গিয়ে কাজ করতাম। অনেক সময় হাত পা ভাঙ্গা থাকায় কাজও করতে পারিনি। হুইলচেয়ার পাবার পর কিছুটি কষ্ট দূর হলো। খাবার জোগাড় করা নিয়ে সবসময় চিন্তিত থাকতাম। তবে চাওয়া বেশি কিছু ছিলে না, চিকিৎসার জন্য আর্থিক সহযোগীতা ও একটি হুইল চেয়ার।

আলোর মশাল সামাজিক যুব সংগঠনের সভাপতি ওমর ফারুক সাইম জানান, শারীরিক প্রতিবন্ধী অসহায় আয়েশাসহ ১৫জন শিশু ও অসহায়কে হুইলচেয়ার দিয়েছি। অসহায়কে সহযোগিতা করতে পেয়ে আমরা মনে শান্তি পাই ও আনন্দ ভোগ করি। নতুন প্রজন্মকে বার্ধক্য ও প্রতিবন্ধী বিষয়ে সচেতনতা বৃদ্ধি সমাজের অসহায় প্রবীণ ও প্রতিবন্ধী মানুষকে বিভিন্ন মানবিক সহায়তা প্রদান এবং সহায়ক উপকরণ বিতরণ কাজের অংশ হিসেবে সংগঠনের পক্ষ হতে তাকে হুইলচেয়ার প্রদান করা হয়। এ সংগঠন যত দিন আছে অসহায় প্রতিবন্ধীদের সহযোগিতা করে যাব। আয়েশা বেগমের হুইল চেয়ারটির সম্পূর্ণ অর্থ দিয়ে সহযোগীতা করেছেন প্রবাসী কল্যান পরিষদ কচুয়া উপজেলা শাখার সভাপতি কাজী মোখলেছুর রহমান। তার নিকট কৃতজ্ঞতা জ্ঞাপন করছি।